আন্তর্জাতিক ডেস্ক

বিনিময় মুদ্রা হিসেবে বিটকয়েনকে বৈধতা দিল এল সালভাদর। দেশটির পার্লামেন্টে বিপুল সংখ্যাগরিষ্ঠতায় পাস হয়েছে বিটকয়েনকে বৈধতা দেওয়া সংক্রান্ত বিলটি।

ডিজিটাল মুদ্রা বিটকয়েনকে রাষ্ট্রীয়ভাবে বিনিময় মুদ্রা হিসেবে বৈধতার ঘটনা এই প্রথম। মধ্য আমেরিকার দেশটি থেকে পাওয়া এ খবরের প্রভাবে তাৎক্ষনিক বিটকয়েনের দর ৫ শতাংশ বেড়ে ৩৪ হাজার ২৩৯ দশমিক ১৭ ডলারে দাঁড়িয়েছে।

এর আগে এল সালভাদরের প্রেসিডেন্ট নায়িব বুকেলে বিটকয়েনকে মুদ্রা হিসবে চালু করার আইনটি ভোটাভুটির জন্য কংগ্রেসে পাঠান। কংগ্রেসে বিলটি ব্যাপক সমর্থন পায়। ৮৪ সদস্যের কংগ্রেসের ৬২ জন সদস্যই বিলটির পক্ষে রায় দেন। কংগ্রেসের সমর্থন পাওয়ায় আগামী ৯০ দিনের মধ্যে এ বিলটি আইনে পরিণত হবে।

উল্লেখ্য, গত ৫ জুন বিটকয়েন বিষয়ক আন্তর্জাতিক সম্মেলনে তার দেশে ডিজিটাল মুদ্রটিকে বৈধতা দেওয়া হবে বলে জানিয়েছিলেন এল সালভাদরের প্রেসিডেন্ট নায়িব বুকেলে। ডিজিটাল ওয়ালেট সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান স্ট্রাইকের সঙ্গে চুক্তিবদ্ধ এল সালভাদরে বিটকয়েন চালু করার পরিকল্পনা করেন তিনি। ডিজিটাল এ মুদ্রা চালুর মাধ্যমে এল সালভাদরে আর্থিক অবকাঠামোর আধুনিকায়ন করার লক্ষ্যের কথাও জানিয়েছিলেন তিনি।

বিটকয়েন মূলত ক্রিপ্টোকারেন্সি বা ডিজিটাল মুদ্রা। এর কোনো কেন্দ্রীয় ব্যাংক বা নির্দিষ্ট দেশ নেই। ইন্টারনেটের এ মুদ্রার লেনদেন হয়ে থাকে। সম্প্রতি এ মুদ্রার দর অনিয়ন্ত্রিতভাবে উঠানামা করছে বলে লক্ষ্য করা যাচ্ছে। বিটকয়েনের অন্যতম শীর্ষ একজন পৃষ্টপোষক মার্কিন ধনকুবের এলন মাস্ক।

২০১৩ সালে বিটকয়েনের দর সর্বোচ্চ উঠে ৪০০ ডলার পর্যন্ত। তবে মাত্র ৪ বছর পর এ মুদ্রার দাম ২০ হাজার ডলার পর্যন্ত উঠে যায়। উত্থানপতনের পর বর্তমানে এ মুদ্রার দর ৩০ থেকে ৪০ হাজার ডলারের মধ্যে উঠানামা করছে।

সারাবাংলা/আইই





Source link

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here